করোনাভাইরাসের সংক্রমণ ঠেকাতে সাধারণ মানুষ ও স্বাস্থ্যকর্মীদের মাস্ক পরার পরামর্শ দিলেও নিজে পরবেন না বলে ঘোষণা দিয়েছেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প।

করোনা পরিস্থিতি নিয়ে শুক্রবার হোয়াইট হাউসে নিয়মিত সংবাদ সম্মেলনে ট্রাম্প মাস্ক পরা নিয়ে কথা বলেন।

ট্রাম্প বলেন, মাস্ক পরলেও সামাজিক দূরত্ব নিশ্চিত করতে হবে। মাস্ক পরা বাধ্যতামূলক নয়। আপনি চাইলে পরতে পারেন। আমি ঠিক করেছি পরব না। কিন্তু অনেকেই আছে যারা মাস্ক পরতে চায়।

ট্রাম্প আরও বলেন, ‘ওভাল অফিসে বিদেশি প্রেসিডেন্ট, প্রধানমন্ত্রী, রাজা-রানী, ডিক্টেটরদেরকে আমার অভ্যর্থনা জানাতে হয়। তাই আমার জন্য এটা না।’ খবর ইউএসএ টুডে ও রয়টার্সের।

যুক্তরাষ্ট্রে করোনার প্রাদুর্ভাবের শুরু থেকে মাস্ক পরার দরকার নেই বলে আসছিল সরকার ও স্বাস্থ্য সংস্থাগুলো। মহামারী ভয়াবহ আকার ধারণ করার পর চলতি সপ্তাহে নতুন করে মাস্ক পরার পরামর্শ দিয়েছে সেন্টার ফর ডিজিস কন্ট্রোল অ্যান্ড প্রিভেনশন (সিডিসি)। এখন মাস্ক পরার কথা বলছে ট্রাম্প প্রশাসনও।

এমন পরিস্থিতিতে করোনার বিরুদ্ধে লড়াইয়ে প্রয়োজনীয় এন-৯৫ ফেস মাস্ক এবং অন্যান্য ব্যক্তিগত সুরক্ষামূলক সরঞ্জাম অন্যান্য দেশে রফতানি বন্ধ করার নির্দেশ দেন ট্রাম্প।

Write A Comment

2 × five =

By continuing to use the site, you agree to the use of cookies. more information

The cookie settings on this website are set to "allow cookies" to give you the best browsing experience possible. If you continue to use this website without changing your cookie settings or you click "Accept" below then you are consenting to this.

Close